থার্ডআই ডেস্ক:

চাঁদে একটি রহস্যময় বস্তুর সন্ধান পেয়েছে চীনের বিজ্ঞানীরা। তারা বস্তুটির নাম দিয়েছে ‘রহস্যময় কুঁড়েঘর’। স্পেসডটকমের এক প্রতিবেদনে এমনটিই জানানো হয়েছে। প্রতিবেদনটিতে বলা হয়েছে, ভন কারমার ক্রেটারে কাজ করছিল চীনের ইউতু ২ রোভার।

চাঁদে পৌঁছানোর প্রায় দুই বছর পর সেই ‘রহস্যময় কুঁড়েঘরের’ সন্ধান পেয়েছে ইউতু ২ রোভার। যেখানে রোভারটি আছে, তার ৮০ মিটার দূরে সেই রহস্যময় বস্তুটিকে দেখা গেছে।

চীনের মহাকাশ বিষয়ক একটি চ্যানেল আওয়ার স্পেসে নিয়মিত সম্প্রচারিত ইউতু ডায়েরি ২-কে উদ্ধৃত করে স্পেসডটকম জানিয়েছে, আচমকা উত্তরের আকাশে একটি রহস্যময় ঘনক দেখা গেছে। যা দেখে মনে হচ্ছে যে এটি যেন একটা ‘রহস্যময় কুঁড়েঘর’।

আচমকা সামনে আসা এই বস্তুটি নিয়ে নতুন প্রশ্ন তৈরি হয়েছে। বলা হচ্ছে, ‘ক্র্যাশ ল্যান্ডিংয়ের পর এটা কি ভিনগ্রহের বাসিন্দারা তৈরি করেছেন? নাকি চাঁদে এর আগে আসা কোনো রোভার এটি বানিয়েছে?

উল্লেখ্য, ২০১৮ সালে চাঁদের উদ্দেশে পাড়ি দিয়েছিল ইউতু ২ রোভার। ২০১৯ সালের ২ জানুয়ারি প্রথমবার চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে ভন কারমার ক্রেটারে অবতরণ (সফট ল্যান্ডিং) করেছিল। রোভারটি তিন মাস কাজ করবে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হয়েছিল। তবে রোভারটি এখনো কাজ করছে।এটির সর্বোচ্চ বেগ ঘণ্টায় ২০০ মিটার।